কবি, সাহিত্যিক ও কলামিস্ট আবদুল গাফফার চৌধুরী প্রদত্ত বক্তব্যকে নিয়ে বিভাজন সৃষ্টি না করার জন্য আহবান

সম্প্রতি বাংলাভাষার সময়ের কিংবদন্তী লেখক, কালজয়ী একুশের গানের রচয়িতা, রবণ্যে সাংবাদিক ও কলামিস্ট জনাব আবদুল গাফফার চৌধুরীর নি্উইর্কের একটি সভায় তাঁর প্রদত্ত বক্তব্যকে কেন্দ্র করে যে নানা বিতর্ক ও বিভাজনের সৃষ্টি হয়েছে তার পরিপ্রেক্ষিতে সংহতির পক্ষ থেকে আমাদের নিম্নরূপ বিবৃতি প্রকাশের উদ্যোগ।

সংহতির জন্মলগ্ন থেকে জনাব আবদুল গাফফার চৌধুরী সরাসরি এবং আত্মিকভাবে সম্পর্কিত, সংহতির একজন অভিভাবক হিসাবে তিনি  নানা দায়িত্বও পরামর্শ দিয়ে আসছেন। এমনকি বিলেতের বাংলাভাষার পত্রপত্রিকা, সাংবাদিকতা ও প্রগতিশীল লেখিয়েদের উত্তরণেরে পেছনে  রয়েছে তাঁর সমান অবদান। যে অবদানের ফলশ্রুতিতে বিলতের বাংলা পত্রপত্রিকা, সাহিত্যিক, সাহিত্য ও রাজনৈতিক সংগঠনগুলো গর্বের  সাথে তাঁকে স্মরণ রাখবে।

বিশেষ করে সংহতি আজ ২৫ বছর পূর্ণ করেছে এবং বিনম্র শ্রদ্ধার সাথে তাঁর বিগত দিনের অবদানকে স্বীকার করছে।  তাঁকেও যথাযথ সম্মান দেখাতে ২০০৮ সালে প্রদান করে সংহতি আজীবন সম্মাননা পদক এবং ২০০৯ সালের ফেব্রুয়ারিতে  ঢাকায় গণ-সম্বর্ধনার আয়োজন করে, যার সাক্ষী হয়ে থাকবে জনাব আবদুল গাফফার চৌধুরীকে নিয়ে রচিত ইতিহাসের একটি অংশ।

আমরা জানি তাঁর একটি আলোচনা ও বক্তব্যকে কেন্দ্র করে কিছু মানুষের নানা রকম মন্তব্য ও অশালীন ভাষায় সমালোচনার মাধ্যমে সামাজিক অবস্থানকে যে রকম ভাবে বিভাজিত করে তোলা হচ্ছে আমরা সে পরিস্থিতিকে নিরসনের মাধ্যমে মুক্ত বুদ্ধিদীপ্ত পরিচর্যার জন্য আহবান করছি, এবং বিজ্ঞ বর্ষীয়ান ব্যক্তি সম্পর্কে এ রকম আপত্তিজনক মন্তব্য থেকে বিরত থাকার অনুরোধ জানাচ্ছি ।

সংহতির পক্ষে বিবৃতিতে নিম্নলিখিত কবি সাহিত্যিকরা তাদের সম্মতি জানান:

কবি ফারুক আহমেদ রনি (প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি, সংহতি), ছড়াকার ও নাট্যকার আবু তাহের (প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক, সংহতি), সেলিম উদ্দিন (প্রতিষ্ঠাতা সহ সভাপতি, সংহতি), কবি তুহিন চৌধুরী (প্রতিষ্ঠাতা সাংস্কৃতিক সম্পাদক, সংহতি), কবি ইকবাল হোসেন বুলবুল (সভাপতি, সংহতি), কবি ও ছড়াকার রেজুয়ান মারুফ (সহ সভাপতি, সংহতি),  শামসুল হক এহিয়া (সাধারণ সম্পাদক, সংহতি), কবি ও মিডিয়া ব্যক্তিত্ব শামসুল জাকি স্বপন (সহ সাধারণ সম্পাদক, সংহতি), কবি শামীম সাহান (প্রচার সম্পাদক, সংহতি), কবি আনোয়ারুল ইসলাম অভি (সাহিত্য সম্পাদক, সংহতি), হেলাল উদ্দিন (প্রাক্তন কোষাধ্যক্ষ, সংহতি), মুনিরা পারভিন (সাংস্কৃতিক সম্পাদক, সংহতি), কবি এম. মোসাইদ খান (সংহতি), শাহেদ চৌধুরী (দপ্তর সম্পাদক, সংহতি), আরাফাত তানিম (সংহতি), ফারুক মিয়া (সংহতি), নজরুল আলম (সহ সাধারণ সম্পাদক), শামসুল হক শাহআলম (সহ কোষাধ্যক্ষ, সংহতি), নাট্যশিল্পী ও সাংস্কৃতিককর্মী রুহুল আমিন, কবি সাইফ উদ্দিন আহমদ বাবর (সংহতি), এ কে এম আব্দুল্লাহ (সংহতি)উদয় শংকর দূজয় (সংহতি)ও আবির ইসলাম (সংহতি)।

তাছাড়াও সংহতির উক্ত বিবৃতিতে আরো যারা তাৎক্ষনিকভাবে সম্পৃক্ততা জানিয়েছেন; তাদের মধ্যে কবি মাশুক ইবনে আনিস (সম্পাদক আদি কাকতাড়ুয়া), কবি ও ছড়াকার দিলু নাসের (কবিতা পরিষদ, সভাপতি), কবি ময়নুর রহমান বাবুল, কথা সাহিত্যিক ও সাংবাদিক সাঈম চৌধুরী (নির্বাহী সম্পাদক, জনমত),  কবি ও গীতিকার আহমেদ হোসেন বাবলু, কবি ও গল্পকার সাগর রাহমান, মোহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া (কমিউনিটি সম্পাদক, জনমত), আমিনা আলী (সাংস্কৃতিককর্মী, সহ সাধারণ সম্পাদক উদীচি), লুসি রহমান (শিল্পী ও সাংস্কৃতিককর্মী), গৌরী চৌধুরী (শিল্পী ও সাংস্কৃতিককর্মী), মিতা তাহের (শীল্পি ও সাংস্কৃতিককর্মী)।

Advertisements

About shanghati

সংহতি আজ ২৫ বছরের যুবা। আজ থেকে ২৫ বছর আগে তৃতীয়বাংলায় কিছু তরুণ কবি ও সাহিত্যকর্মিদের প্রচেষ্টায় সংহতি সাহিত্য পরিষদের জন্ম হয়। জন্মলগ্ন থেকে সংহতি তার আদর্শ এবং কর্ম তৎপরতার মাধ্যমে একটি নিরেট সাহিত্য সংগঠনে পরিণত হয়েছে। বাংলা সাহিত্যের সব ক’টি ক্ষেত্রেই সংহতি সমান অবদান রেখে আসছে। সংহতি শুরুতে যুক্তরাজ্য থেকে সর্বপ্রথম মাসিক সাহিত্যের কাগজ প্রকাশনার মধ্যদিয়ে তার যাত্রা শুরু করে। তারপর ধাপে ধাপে বাংলা সাহিত্যের বিভিন্ন ক্ষেত্রে সংযোজন করছে ভিন্ন মাত্রা। ২০০৮ সাল থেকে বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গের বাহিরে সর্বপ্রথম কবিতা উৎসব ও বহির্বিশ্বের বাংলাভাষার কবি সাহিত্যিকদের মূল্যায়নের লক্ষ্যে সাহিত্য পুরষ্কারের উদ্যোগ গ্রহণ করে। সংহতি কবিতা উৎসবকে কেন্দ্র করে প্রতি বছর বিশ্বের বিভিন্ন জায়গা থেকে অংশগ্রহণ করছেন কবি ও সাহিত্যিকরা।
This entry was posted in সাম্প্রতিক, Home, Press release and tagged . Bookmark the permalink.

মন্তব্য করুন

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s